1. raselahamed29@gmail.com : admin :
  2. muktirbarta85@gmail.com : muktirbarta :
শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ০১:১৯ পূর্বাহ্ন
এই মুহুর্তে :
কুষ্টিয়ার একজন মানুষও খাদ্য কষ্টে থাকবে না, আমরা থাকতেঃ হানিফ নবীদুল ইসলাম চেয়ারম্যানের নিজস্ব অর্থায়নে-ঈদ উপহার শাড়ী, লুঙ্গী নগদ অর্থ বিতরণ। চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইন্সে “জ্ঞান অন্বেষণ” নামক লাইব্রেরীর শুভ উদ্বোধন করলেন পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম কুমারখালীতে শোবার ঘরে মিলল গোখরা সাপ ও ৩৮টি ডিম সোনাইমুড়ীতে ঘুষ গ্রহণের অভিযোগে এসআই প্রত্যাহার বিশেষ পন্থায় ফার্নিচারের ভিতরে ১২০কেজি গাঁজা ঢুকিয়ে পাচার রায়গঞ্জের নলকা,পাঙ্গাসী ও ব্রহ্মগাছা ইউনিয়নের ১৫’শ পরিবারের মাঝে মানবিক সহায়তা প্রদান। নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে বিদ্যুৎপৃষ্টে শ্রমিকের মৃত্যু কুষ্টিয়ায় ১১ হাজার অসহায় মানুষের মধ্যে খাদ্রসামগ্রী বিতরণ করলেন হানিফ এমপি কুমারখালীতে অজ্ঞাত সন্ত্রাসী হামলায় আওয়ামীলীগ কর্মী গুলিবিদ্ধ

মিরপুরের পাহাড়পুরের গৃহবধু শেলীর উপর যৌতুকের দাবীতে নির্মম নির্যাতন,মামলা না করতে হুমকি।

নিজস্ব প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৩ মে, ২০২১
  • ৮০ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

বিচারের আশায় জন প্রতিনিধিদের দ্বারে দ্বারে ঘুরেও পাননি প্রতিকার।

যৌতুকের দাবিতে মিরপুরের পাহাড়পুরের সজিব আলীর(৩২) স্ত্রী শেলী আক্তারকে গত ১৬ এপ্রিল শুক্রবার সন্ধ্যায় চুলার কড়াইয়ের রান্না করা ফুটন্ত ডাউল ছুড়ে মারেন মুখমন্ডল বরাবর তারই শাশুড়ি পাহাড়পুর গ্রামের মৃত আজিবার মোল্লার স্ত্রী ফাতেমা বেগম। মুখমন্ডল বাচাতে গিয়ে মাথা সরিয়ে নিলে তা গিয়ে পড়ে তার সমস্ত শরীরে।পুড়ে যায় হাত,বুক,পেট ও পিঠের অনেকাংশ। ঐ অবস্থায়ই তার শাশুড়ি তাকে চুলের মুঠি ধরে লাথি কিল ঘুষি মারতে থাকলে আর্তচিৎকারে স্থানীয় লোকজন ছুটে এসে পুলিশ খবর দেন।পুলিশ উদ্ধার করে মিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তি করেন।বিদেশ ফেরত সজিব আলী বেকারত্ব ঘুচাতে যৌতুকের লোভে ৬মাস পূর্বেও গলায় ওড়না পেচিয়ে হত্যা চেষ্টা করেন ভুক্তভোগী শেলী খাতুনকে।হাসপাতালে ভর্তির পর পুলিশ ব্যবস্থা নিতে গেলে আসামীদের যোগসাজশে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি মাধ্যমে উপযুক্ত বিচার করিয়ে দেবেন বলে আশ্বাস দিয়ে মামলা বাধাগ্রস্থ করেন।
২৯ এপ্রিল হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র নিয়ে ৩০এপ্রিল মিরপুর স্থানীয় জনপ্রতিনিধির পৌরমেয়র বাসভবনে সালিশ বৈঠকে বিচারকার্য শেষ হয় অসমাপ্ত ভাবেই।তাই বিচার পেতে দেরি হওয়ায় ৩ মে শেলী আক্তার মামলা দিতে থানায় গেলে আসামীপক্ষ ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদ্বারা বাধাপ্রাপ্ত হয়ে শেষ পর্যন্ত সাধারণ ডায়েরীও করতে দেয়া হয়নি সজিব আলী তার স্ত্রীকে বলেন,যদি ভাত খাওয়ার ইচ্ছা থাকে এবং এর চেয়ে বড় ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ইচ্ছা না থাকে,তাইলে মামলা করবিনা।
শেলী আক্তার বলেন,সুখের আশায় এবং ৩বছরের পুত্র সন্তানের মুখপানে চেয়ে চরম নির্যাতন সহ্য করেও সংসার করে আসছিলাম দীর্ঘদিন।আমি খুবই দরিদ্র ঘরের মেয়ে,তাই সংসার ছেড়ে মামলা চালানোর মতো সামর্থও আমার নেই। এ বিষয়ে সজিব আলীর মুঠোফোনের কথা হলে তিনি এ বিষয়ে মিমাংসা হয়ে গেছে বলে জানান।কিন্তু তার কাছে মিমাংসার আপোষনামা আছে কিনা জানতে চাইলে ফোন কেটে দিয়ে আর পরবর্তীতে ফোন রিসিভ করেননি।ভুক্তভোগী শেলী আক্তারের সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি বলেন,মিমাংসার নামে সময়ক্ষেপন করে আমার সাথে প্রতারনা করা হচ্ছে এবং মামলাও করতে দেয়া হচ্ছেনা। তাই আমি পুলিশ সুপারের কাছে আপনাদের মাধ্যমে বিচার চাচ্ছি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু

বিশ্বে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
© All rights reserved © 2020 dailymuktirbarta.com

Design & Developed By : Anamul Rasel

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.